ঢাকা ০৬:৩০ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

“ফিলিস্তিনে” ইসরায়েলি বর্বর হামলার প্রতিবাদে ৭ দফা দাবিতে রানিশংকৈলে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৫:২৩:২৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২৩
  • / ৩৫১ বার পড়া হয়েছে

একে আজাদ, রাণীশংকৈল প্রতিনিধি

ফিলিস্তিনের গাজায় ইসরায়েলের হামলার প্রতিবাদ জানিয়ে ৭দফা দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে ,
ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে উলামা পরিষদের আয়োজনে, আজ (২৮ অক্টোবর) সকাল ১১ ঘটিকায় রানিশংকৈল শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম মাঠে হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ মুসলমান একত্রিত হয়ে বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে এবং উপজেলার প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে রানিশংকৈল ডিগ্রী কলেজ মাঠে এসে শেষ হয়, বিক্ষোভ মিছিলে প্রত্যেকের কন্ঠে উচ্চারিত হয়, ফিলিস্তিন ফিলিস্তিন- জিন্দাবাদ জিন্দাবাদ,
সাবিলুনা সাবিলুনা- আলজিহাদ আলজিহাদ। ‘আল আকসা আল আকসা, লাব্বাইক লাব্বাইক, বিশ্বের মুসলিম এক হও এক হও’, ‘আল আকসা আল আকসা জিন্দাবাদ জিন্দাবাদ’, ‘ইসরায়েলের ইহুদিরা হুঁশিয়ার সাবধান’, ‘নারায়ে তাকবির, আল্লাহু আকবার’, ‘বদরের হাতিয়ার গর্জে উঠো আরেকবার’, ‘ইসরায়েলের কাপুরুষেরা হুঁশিয়ার সাবধান’ ইত্যাদি স্লোগান দিতে দেখা যায়।

বিক্ষোভ মিছিলের পরে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
সমাবেশে ৭ দফা দাবি :-১. অতিসত্বর ফিলিস্তিনিদের উপর বর্বরোচিত নির্মম হামলা বন্ধ করতে হবে, ২. ফিলিস্তিনিকে স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দিতে হবে এবং মুসলমানদের প্রথম কিবলাহ বাইতুল মুকাদ্দাস কে অতিসত্বর মুসলমানদের জন্য উন্মুক্ত করে দিতে হবে, ৩. ইসরাইলকে দখলদার অবৈধ রাষ্ট্র হিসেবে ঘোষণা করতে হবে , ৪.ইসরাইলী সকল পণ্যকে রাষ্ট্রীয়ভাবে বৈকট/ বর্জন করতে হবে, ৫.ইসরাইল কর্তৃক নৃশংস হামলা ও নিহতদের উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দিতে হবে ৬.রাষ্ট্রীয়ভাবে অর্থ ও জনবল পাঠানোর ব্যবস্থা করতে হবে, ৭.বাংলাদেশের নিরপরাধ নির্দোষ নির্যাতিত মজলুম কারাবন্দি সকল আলেম – উলামাদের অতিসত্বর নিঃশর্তে মুক্তি দিতে হবে । এসব দাবি নিয়ে উলামা পরিষদের নেতারা কণ্ঠস্বর কাঁপানো বক্তব্য প্রদান করেন – মাওলানা হারুনের সঞ্চালনায় এসময় বক্তব্য রাখেন, মাওলানা শামসুদ্দিন , মাওলানা নুরুজ্জামান , মাওলানা মাসুদ, মাওলানা রাজিকুল ইসলাম, মাওলানা তুমিজ উদ্দিন,মাওলানা আব্দুল আলিম, মাওলানা আলম, মাওলানা আব্দুল মালিক এছাড়াও, সাদ্দম,জহিরুল ইসলাম, আব্দুর রহিম, কামরুল ইসলাম , মাওলানা আনিসুর রহমান, হাফেজ মনোয়ার হোসেন, হাফেজ হাবিবুল্লাহ, শফিকুল ইসলাম, মাওলানা আবুল কালাম, মাওলানা আজাদ

এসময় বক্তারা, ৭ দফা দাবি দ্রুত কার্যকর করার অনুরোধ রেখে বলেন ‘ফিলিস্তিনের সাধারণ মানুষের প্রতি যে জুলুম-নির্যাতন চলমান, তার প্রতিবাদে আজ আমরা সমবেত হয়েছি।ইসরায়েলের অবৈধ দখলদারির প্রতিবাদ জানাচ্ছি। আমরা মুক্তিকামী জনতার প্রতি সংহতি জানাচ্ছি। আমরা কোনো জঙ্গিবাদকে সমর্থন করি না। কিন্তু বিশ্বের যে প্রান্তে অন্যায় হবে, সেখানেই আমাদের প্রতিবাদ জারি থাকবে ইনশাআল্লাহ।

বিক্ষোভ মিছিলে উপস্তিত ছিলেন, প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

“ফিলিস্তিনে” ইসরায়েলি বর্বর হামলার প্রতিবাদে ৭ দফা দাবিতে রানিশংকৈলে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত

আপডেট সময় : ০৫:২৩:২৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২৩

একে আজাদ, রাণীশংকৈল প্রতিনিধি

ফিলিস্তিনের গাজায় ইসরায়েলের হামলার প্রতিবাদ জানিয়ে ৭দফা দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে ,
ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে উলামা পরিষদের আয়োজনে, আজ (২৮ অক্টোবর) সকাল ১১ ঘটিকায় রানিশংকৈল শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম মাঠে হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ মুসলমান একত্রিত হয়ে বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে এবং উপজেলার প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে রানিশংকৈল ডিগ্রী কলেজ মাঠে এসে শেষ হয়, বিক্ষোভ মিছিলে প্রত্যেকের কন্ঠে উচ্চারিত হয়, ফিলিস্তিন ফিলিস্তিন- জিন্দাবাদ জিন্দাবাদ,
সাবিলুনা সাবিলুনা- আলজিহাদ আলজিহাদ। ‘আল আকসা আল আকসা, লাব্বাইক লাব্বাইক, বিশ্বের মুসলিম এক হও এক হও’, ‘আল আকসা আল আকসা জিন্দাবাদ জিন্দাবাদ’, ‘ইসরায়েলের ইহুদিরা হুঁশিয়ার সাবধান’, ‘নারায়ে তাকবির, আল্লাহু আকবার’, ‘বদরের হাতিয়ার গর্জে উঠো আরেকবার’, ‘ইসরায়েলের কাপুরুষেরা হুঁশিয়ার সাবধান’ ইত্যাদি স্লোগান দিতে দেখা যায়।

বিক্ষোভ মিছিলের পরে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
সমাবেশে ৭ দফা দাবি :-১. অতিসত্বর ফিলিস্তিনিদের উপর বর্বরোচিত নির্মম হামলা বন্ধ করতে হবে, ২. ফিলিস্তিনিকে স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দিতে হবে এবং মুসলমানদের প্রথম কিবলাহ বাইতুল মুকাদ্দাস কে অতিসত্বর মুসলমানদের জন্য উন্মুক্ত করে দিতে হবে, ৩. ইসরাইলকে দখলদার অবৈধ রাষ্ট্র হিসেবে ঘোষণা করতে হবে , ৪.ইসরাইলী সকল পণ্যকে রাষ্ট্রীয়ভাবে বৈকট/ বর্জন করতে হবে, ৫.ইসরাইল কর্তৃক নৃশংস হামলা ও নিহতদের উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দিতে হবে ৬.রাষ্ট্রীয়ভাবে অর্থ ও জনবল পাঠানোর ব্যবস্থা করতে হবে, ৭.বাংলাদেশের নিরপরাধ নির্দোষ নির্যাতিত মজলুম কারাবন্দি সকল আলেম – উলামাদের অতিসত্বর নিঃশর্তে মুক্তি দিতে হবে । এসব দাবি নিয়ে উলামা পরিষদের নেতারা কণ্ঠস্বর কাঁপানো বক্তব্য প্রদান করেন – মাওলানা হারুনের সঞ্চালনায় এসময় বক্তব্য রাখেন, মাওলানা শামসুদ্দিন , মাওলানা নুরুজ্জামান , মাওলানা মাসুদ, মাওলানা রাজিকুল ইসলাম, মাওলানা তুমিজ উদ্দিন,মাওলানা আব্দুল আলিম, মাওলানা আলম, মাওলানা আব্দুল মালিক এছাড়াও, সাদ্দম,জহিরুল ইসলাম, আব্দুর রহিম, কামরুল ইসলাম , মাওলানা আনিসুর রহমান, হাফেজ মনোয়ার হোসেন, হাফেজ হাবিবুল্লাহ, শফিকুল ইসলাম, মাওলানা আবুল কালাম, মাওলানা আজাদ

এসময় বক্তারা, ৭ দফা দাবি দ্রুত কার্যকর করার অনুরোধ রেখে বলেন ‘ফিলিস্তিনের সাধারণ মানুষের প্রতি যে জুলুম-নির্যাতন চলমান, তার প্রতিবাদে আজ আমরা সমবেত হয়েছি।ইসরায়েলের অবৈধ দখলদারির প্রতিবাদ জানাচ্ছি। আমরা মুক্তিকামী জনতার প্রতি সংহতি জানাচ্ছি। আমরা কোনো জঙ্গিবাদকে সমর্থন করি না। কিন্তু বিশ্বের যে প্রান্তে অন্যায় হবে, সেখানেই আমাদের প্রতিবাদ জারি থাকবে ইনশাআল্লাহ।

বিক্ষোভ মিছিলে উপস্তিত ছিলেন, প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।