ঢাকা ০১:৩৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
হিলিতে আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগের ২১ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন বিরামপুরে ধান, চাল ও গম ক্রয়ের শুভ উদ্বোধন করেন শিবলী সাদিক এমপি হোটেলে খেতে গিয়ে দায়িত্ব হারালেন প্রিজাইডিং কর্মকর্তা পাঁচবিবিতে খরায় লিচুর ফলন হ্রাস,বাগান মালিকের মাথায় হাত পাঁচবিবিতে ট্রাইকো কম্পোস্ট সার বাজারজাতকরণে মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত আত্মসমর্পণের পর কারাগারে বিএনপি নেতা ইশরাক দুর্ঘটনার কবলে ইরানের প্রেসিডেন্টকে বহনকারী হেলিকপ্টার অবৈধ জুস তৈরির কারখানায় অভিযান, ১০ লাখ টাকা জরিমানা দেশ এখন মগের মুল্লুকে পরিণত হয়েছে : মির্জা ফখরুল ‘ভারত-চীনকে যুক্ত করতে পারলেই রোহিঙ্গা সংকট সমাধান সম্ভব’

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ২০০ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ১০:৪৩:১৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৪
  • / ৩৩৬ বার পড়া হয়েছে

মো খোকন,ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর উপজেলায় গ্রাম্য এলাকায় বিশেষ অভিযান চালিয়ে ২০০ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার(১৫ জানুয়ারী) সকালে সদর উপজেলায় নাটাই উত্তর ইউনিয়নের ভাটপাড়া গ্রামের আওয়ামী লীগের বহিস্কৃত নেতা হালিম শাহ লিল মিয়া ও তার চাচাতো আমির হোসেনের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে এসব অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধার করা অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে চল-টেঁটা, বল্লম, লাঠি, এককাট্টা, সুচালো রড, সূচালো বাশেঁর কঞ্চি, চাপাতি, ধারালো দা, পাথরের টুকরা, কাতরা, সড়কি, রামদা, বল্লম, ফলা প্রভৃতি।

সরেজমিনে জানা যায়, ৭ জানুয়ারী অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ফিরোজুর রহমান ওলিও’র সমর্থনে ভাটপাড়া গ্রামে নেতৃত্ব দেন হালিম শাহ লিল মিয়া। তিনি এর আগেও ইউনিয়ন পরিষদ বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করেছিলেন।

সদর মডেল থানা সূত্রে জানা যায়, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পরবর্তী সময়ে কোন ধরণের দাঙ্গা ও সহিংসতা না হয় সেজন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পুলিশ সুপার দেশীয় অস্ত্র উদ্ধারের বিষয়ে সদর থানা পুলিশকে নির্দেশ দেন। তারপর পুলিশ ভাটপাড়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে ২০০ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করে।

এর আগে গত বুধবার থেকে শনিবার দুপুর পর্যন্ত উপজেলার ২টি ইউনিয়নে ও জেলা শহরের একটি গ্রামের অভিযান চালিয়ে ১ হাজার দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করে পুলিশ৷

সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আসলাম হোসেন বলেন বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলেন, সদর উপজেলায় সন্দেহজনক এলাকায় এই অভিযান অব্যাহত থাকবে। গ্রাম্য এলাকায় যাতে মারামারি-দাঙ্গা সৃষ্টি না হয়, শান্তিশৃঙ্খলা যাতে অটুট থাকে সেজন্য এ অভিযান নিয়মিত চলবে। যাঁদের বাড়িতে অপ্রয়োজনীয় দেশি অস্ত্র মিলবে, তাঁদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ২০০ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার

আপডেট সময় : ১০:৪৩:১৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৪

মো খোকন,ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর উপজেলায় গ্রাম্য এলাকায় বিশেষ অভিযান চালিয়ে ২০০ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার(১৫ জানুয়ারী) সকালে সদর উপজেলায় নাটাই উত্তর ইউনিয়নের ভাটপাড়া গ্রামের আওয়ামী লীগের বহিস্কৃত নেতা হালিম শাহ লিল মিয়া ও তার চাচাতো আমির হোসেনের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে এসব অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধার করা অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে চল-টেঁটা, বল্লম, লাঠি, এককাট্টা, সুচালো রড, সূচালো বাশেঁর কঞ্চি, চাপাতি, ধারালো দা, পাথরের টুকরা, কাতরা, সড়কি, রামদা, বল্লম, ফলা প্রভৃতি।

সরেজমিনে জানা যায়, ৭ জানুয়ারী অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ফিরোজুর রহমান ওলিও’র সমর্থনে ভাটপাড়া গ্রামে নেতৃত্ব দেন হালিম শাহ লিল মিয়া। তিনি এর আগেও ইউনিয়ন পরিষদ বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করেছিলেন।

সদর মডেল থানা সূত্রে জানা যায়, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পরবর্তী সময়ে কোন ধরণের দাঙ্গা ও সহিংসতা না হয় সেজন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পুলিশ সুপার দেশীয় অস্ত্র উদ্ধারের বিষয়ে সদর থানা পুলিশকে নির্দেশ দেন। তারপর পুলিশ ভাটপাড়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে ২০০ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করে।

এর আগে গত বুধবার থেকে শনিবার দুপুর পর্যন্ত উপজেলার ২টি ইউনিয়নে ও জেলা শহরের একটি গ্রামের অভিযান চালিয়ে ১ হাজার দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করে পুলিশ৷

সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আসলাম হোসেন বলেন বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলেন, সদর উপজেলায় সন্দেহজনক এলাকায় এই অভিযান অব্যাহত থাকবে। গ্রাম্য এলাকায় যাতে মারামারি-দাঙ্গা সৃষ্টি না হয়, শান্তিশৃঙ্খলা যাতে অটুট থাকে সেজন্য এ অভিযান নিয়মিত চলবে। যাঁদের বাড়িতে অপ্রয়োজনীয় দেশি অস্ত্র মিলবে, তাঁদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা হবে।