ঢাকা ০১:৫১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রাস্তা পাকা করন না হওয়ায় মানুষ নানা সমস্যায় জর্জরিত

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ১২:৩০:০৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুলাই ২০২৩
  • / ৩৯১ বার পড়া হয়েছে

রফিকুল ইসলাম ,তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ

সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার মাধাইনগর ইউনিয়নের তাড়াশ নিমগাছি পাকা রাস্তার ধানকুণ্ঠি (সরাতলা) থেকে মাধাই নগর পর্যন্ত চার কিলোমিটার আঞ্চলিক সড়কটি পাকা করন না হওয়ায় ৫টি গ্রামের মানুষ নানা সমস্যায় জর্জরিত।
তাড়াশ সদর থেকে প্রায় ৫ কিলোমিটার উত্তর পুর্ব দিকের শুভার,মাদার জানি,ঠাকুরপুকুর ও বুড়াপীর সহ ওই ৫ টি গ্রাম অবস্থিত। গ্রাম বাসীর অভিযোগ ,গ্রামের পাশদিয়ে চলে যাওয়া কাচা সড়কটি দির্ঘদিনে ও সংস্কার করা হচ্ছে না। বর্ষা মৌসুমে কর্দমাক্ত সড়ক দিয়ে গ্রাম বাসীকে চলাচল করতে হয়।ওই সকল গ্রামের অধিকাংশ মানুষই আদিবাসী ও কৃষির উপর নির্ভরশীল।সড়ক গুলো চলাচলের অনুপযোগী হওয়ায় তাদের উৎপাদিত কৃষি পণ্য হাটে বাজারে নিয়ে যেতে অনেক কষ্ঠ ভোগ করতে হয়। সড়কের পাশে ১টি কমিউনিটি ক্লিনিক ও ১টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। বর্ষা মৌসুমে ছাত্র-ছাত্রীদের স্কুলে ও রোগীদের হাসপাতালে আশা যাওয়ায় কষ্ঠের শেষ থাকে না।

মাদারজানী গ্রামের কৃষক মোঃ লেবু সরকার জানান,আমাদের আয়ের একমাত্র উৎস কৃষি। কিন্তু সেই উৎপাদিত কৃষিপণ্য (ধান) বিক্রি করতে গেলে আমরা বাজার মুল্যের চেয়ে কমপাই। আমাদের বেশি গাড়ীভাড়া দিয়ে ধান হাটে নিতে হয়। এতে কৃষকের অর্থনৈতিক ক্ষতি হয়। তিনি আর ও জানান, গত বছর এলাকার জনসাধারন স্বেচ্ছা শ্রমের ভিত্তিতে ওই রাস্তা সংস্কার করেছিল এবং উপজেলা প্রকৌশল অফিসে রাস্তাটি পাকা করনের জন্য আবেদন করেছিলেন। তখন আমাদের আস্বস্ত করা হয়েছিল। কিন্তু ২ বছর অতিবাহিত হলে ও কোন খবর নেই।
সুভার গ্রামের বাসিন্দা এনামুল জানান, নির্বাচনের সময় সকল এমপি সদস্য ও চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বার বার রাস্তাটি পাকা করনের প্রতিশ্রুতি দিলে ও পরে মনে থাকে না।

মাধাইনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. হাবিলুর রহমান হাবিল জানান, ওই কয়েকটি গ্রামের মানুষের বর্ষা মৌসুমে যাতায়াতের খুব কষ্ঠ হয়। আমি আপ্রান চেষ্টা চালিয়েছি রাস্তাটি পাকা করনের ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

রাস্তা পাকা করন না হওয়ায় মানুষ নানা সমস্যায় জর্জরিত

আপডেট সময় : ১২:৩০:০৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুলাই ২০২৩

রফিকুল ইসলাম ,তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ

সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার মাধাইনগর ইউনিয়নের তাড়াশ নিমগাছি পাকা রাস্তার ধানকুণ্ঠি (সরাতলা) থেকে মাধাই নগর পর্যন্ত চার কিলোমিটার আঞ্চলিক সড়কটি পাকা করন না হওয়ায় ৫টি গ্রামের মানুষ নানা সমস্যায় জর্জরিত।
তাড়াশ সদর থেকে প্রায় ৫ কিলোমিটার উত্তর পুর্ব দিকের শুভার,মাদার জানি,ঠাকুরপুকুর ও বুড়াপীর সহ ওই ৫ টি গ্রাম অবস্থিত। গ্রাম বাসীর অভিযোগ ,গ্রামের পাশদিয়ে চলে যাওয়া কাচা সড়কটি দির্ঘদিনে ও সংস্কার করা হচ্ছে না। বর্ষা মৌসুমে কর্দমাক্ত সড়ক দিয়ে গ্রাম বাসীকে চলাচল করতে হয়।ওই সকল গ্রামের অধিকাংশ মানুষই আদিবাসী ও কৃষির উপর নির্ভরশীল।সড়ক গুলো চলাচলের অনুপযোগী হওয়ায় তাদের উৎপাদিত কৃষি পণ্য হাটে বাজারে নিয়ে যেতে অনেক কষ্ঠ ভোগ করতে হয়। সড়কের পাশে ১টি কমিউনিটি ক্লিনিক ও ১টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। বর্ষা মৌসুমে ছাত্র-ছাত্রীদের স্কুলে ও রোগীদের হাসপাতালে আশা যাওয়ায় কষ্ঠের শেষ থাকে না।

মাদারজানী গ্রামের কৃষক মোঃ লেবু সরকার জানান,আমাদের আয়ের একমাত্র উৎস কৃষি। কিন্তু সেই উৎপাদিত কৃষিপণ্য (ধান) বিক্রি করতে গেলে আমরা বাজার মুল্যের চেয়ে কমপাই। আমাদের বেশি গাড়ীভাড়া দিয়ে ধান হাটে নিতে হয়। এতে কৃষকের অর্থনৈতিক ক্ষতি হয়। তিনি আর ও জানান, গত বছর এলাকার জনসাধারন স্বেচ্ছা শ্রমের ভিত্তিতে ওই রাস্তা সংস্কার করেছিল এবং উপজেলা প্রকৌশল অফিসে রাস্তাটি পাকা করনের জন্য আবেদন করেছিলেন। তখন আমাদের আস্বস্ত করা হয়েছিল। কিন্তু ২ বছর অতিবাহিত হলে ও কোন খবর নেই।
সুভার গ্রামের বাসিন্দা এনামুল জানান, নির্বাচনের সময় সকল এমপি সদস্য ও চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বার বার রাস্তাটি পাকা করনের প্রতিশ্রুতি দিলে ও পরে মনে থাকে না।

মাধাইনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. হাবিলুর রহমান হাবিল জানান, ওই কয়েকটি গ্রামের মানুষের বর্ষা মৌসুমে যাতায়াতের খুব কষ্ঠ হয়। আমি আপ্রান চেষ্টা চালিয়েছি রাস্তাটি পাকা করনের ।