ঢাকা ০৩:১৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মেহেন্দীগঞ্জে অবৈধ বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার আটক

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০১:০৫:৫০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ মে ২০২৩
  • / ৪৩৭ বার পড়া হয়েছে

মোঃ মশিউর রহমান সুমন, মেহেন্দীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

মেহেন্দীগঞ্জে অবৈধ বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার আটক করা হয়েছে। মেহেন্দীগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়ন রুকুন্দির তেতুলিয়া নদী থেকে উলানিয়া নৌপুলিশ সোমবার দিবাগত রাত ১০টার সময় শাহজালাল নামে লোড ড্রেজারটি আটক করে বলে নৌপুলিশের ইন্সপেক্টর গণমাধ্যমকে জানান।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়।
স্থানীয় সুত্রে জানা যায়,বর্তমানে চুক্তিতে নদীর তীররক্ষা প্রকল্পের জিও ব্যাগ ভর্তির জন্য বালু দেওয়ার কথা বলে, নদীর অপর তীর থেকে প্রতিদিন সন্ধার পর থেকে গভীর রাত পযন্ত অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন করে, আর এই বালু মেহেন্দীগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে ভাসমান আনলোড ড্রেজারের মাধ্যমে বিক্রি করা হয়।

মেহেন্দীগঞ্জ একটি নদীবেষ্টিত এলাকা, এভাবেই প্রতিনিয়ত মেহেন্দীগঞ্জের প্রতিটি ইউনিয়নের পাশের নদী থেকে বালু উত্তোলন করা হচ্ছে।
এই বালু উত্তোলনের ফলে ইতিমধ্যেই মেহেন্দীগঞ্জ বিভিন্ন স্থানে ভাঙ্গনের সৃষ্টি হয়েছে এবং ঘর বাড়ি ফসলি জমি স্কুল কলেজ মসজিদ মাদ্রাসা নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাচ্ছে।
ভুক্তভোগী এলাকাবাসী জানান, এদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া না হলে অচিরেই মেহেন্দীগঞ্জের মানচিত্র নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

মেহেন্দীগঞ্জে অবৈধ বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার আটক

আপডেট সময় : ০১:০৫:৫০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ মে ২০২৩

মোঃ মশিউর রহমান সুমন, মেহেন্দীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

মেহেন্দীগঞ্জে অবৈধ বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার আটক করা হয়েছে। মেহেন্দীগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়ন রুকুন্দির তেতুলিয়া নদী থেকে উলানিয়া নৌপুলিশ সোমবার দিবাগত রাত ১০টার সময় শাহজালাল নামে লোড ড্রেজারটি আটক করে বলে নৌপুলিশের ইন্সপেক্টর গণমাধ্যমকে জানান।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়।
স্থানীয় সুত্রে জানা যায়,বর্তমানে চুক্তিতে নদীর তীররক্ষা প্রকল্পের জিও ব্যাগ ভর্তির জন্য বালু দেওয়ার কথা বলে, নদীর অপর তীর থেকে প্রতিদিন সন্ধার পর থেকে গভীর রাত পযন্ত অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলন করে, আর এই বালু মেহেন্দীগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে ভাসমান আনলোড ড্রেজারের মাধ্যমে বিক্রি করা হয়।

মেহেন্দীগঞ্জ একটি নদীবেষ্টিত এলাকা, এভাবেই প্রতিনিয়ত মেহেন্দীগঞ্জের প্রতিটি ইউনিয়নের পাশের নদী থেকে বালু উত্তোলন করা হচ্ছে।
এই বালু উত্তোলনের ফলে ইতিমধ্যেই মেহেন্দীগঞ্জ বিভিন্ন স্থানে ভাঙ্গনের সৃষ্টি হয়েছে এবং ঘর বাড়ি ফসলি জমি স্কুল কলেজ মসজিদ মাদ্রাসা নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাচ্ছে।
ভুক্তভোগী এলাকাবাসী জানান, এদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া না হলে অচিরেই মেহেন্দীগঞ্জের মানচিত্র নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যাবে।